হেঁচকির সমস্যা সমাধানে কিছু ঘরোয়া টোটকা

SHARE

হেঁচকি কোন রোগ না হলেও, বেশ বিরক্তিকর একটি সমস্যা। চিকিৎস শাস্ত্র মতে হেঁচকি ‘সিঙ্ক্রোনাস ডায়াফ্র্যাগমাটিক ফ্লাটার বা সিংগাল্টাস’ নামে পরিচিত।

মূলত অতিরিক্ত খাবার খেলেই এই হেঁচকি উঠতে শুরু করে। আর তখন অস্বস্থি বেড়ে যায়। কিন্তু কয়েকটি সাধারণ পন্থা অবলম্বন করলেই বিরক্তিকর হেঁচকির হাত থেকে রক্ষা পাওয়া সম্ভব-

১। লেবু কামড়ে খান। হেঁচকি ওঠা রোধ করতে পাতলা করে কাটা এক টুকরা লেবু জিহ্বার উপর নিয়ে ক্যান্ডির মতো চুষে খেলে কাজে দেবে।

২। অনেক সময়ে অ্যাসিডিটি থেকে হেঁচকি হয়। তখন পানি খান। পানি দিয়ে গার্গেল করুন।

আর একটু দূরত্ব রেখেপানি খান

৩। এই সময়ে যদি আপনাকে কেউ ভয় দেখান আর তাতে আপনি ভয় পেলে দেখবেন হঠাৎই কমে গেছে হেঁচকি। লবণের গন্ধ শুঁকুন। হেঁচকি বন্ধে এক চামচ চিনি খেলে উপকার পাওয়া যাবে।

৪। হাতে আকুপ্রেশারের মাধ্যমেও কমে যায় হেঁচকি। জিভ বের করে রাখলেও কিছুক্ষণের মধ্যে কমে যাবে। মুখের উপরিভাগ ভালোভাবে মালিশ করতে হবে। এক্ষেত্রে খুব সাবধানে একটি তুলা দিয়ে ম্যাসাজ করতে হবে। সম্ভব হলে গলার পিছনে মালিশ করতে পারেন।

৫। নিঃশ্বাস বন্ধ করে রাখুন। একটি কাগজের ব্যাগে মুখ ঢুকিয়ে শ্বাস নিতে হবে। তবে কাগজের ব্যাগ দিয়ে পুরো মাথা ঢেকে ফেললে চলবে না। বড় করে একটি শ্বাস নিয়ে যতক্ষণ সম্ভব শ্বাসটি চেপে ধরে রাখতে হবে। একই সঙ্গে নাক চেপে ধরতে ভুলবেন না।