শিক্ষাঙ্গন

রাবি শিক্ষকদের একদিনের বেতন যাচ্ছে কর্মহীনদের ঘরে

শেয়ার করুন

হাসান মাহমুদ, রাবি প্রতিনিধি: করোনাভাইরাসের উদ্ভূত পরিস্থিতিতে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে একদিনের বেতনের সমপরিমাণ অর্থ দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষকরা। শুক্রবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ড. মো. আশরাফুল ইসলাম খান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আশরাফুল ইসলাম বলেন, দেশের এমন পরিস্থিতিতে মানুষের পাশে দাঁড়ানো যায় কিনা এই মর্মে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির কয়েকজন সদস্য ২৬ মার্চ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে আলোচনা করে। সেখান থেকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা যদি তাদের বেতনের একদিনের সমপরিমাণ অর্থ দেয় তাহলে সহজেই অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানো যায়।

আশরাফুল আরো বলেন, দেশের করোনা পরিস্থিতির কারণে সভা-সমাবেশ নিষিদ্ধ থাকায় গত ৩০ মার্চ বিভিন্ন বিভাগের সভাপতি ও ইন্সটিটিউটের পরিচালকে এই মর্মে বার্তা পাঠানো হয়। তারা বিভাগের শিক্ষকদের সাথে আলোচনা করেন। অনেকেই দিতে রাজি হয়েছে। ৩০ মার্চ বেশ কয়েকটি বিভাগ তাদের সহযোগিতা পাঠায়।

শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক বলেন, বর্তমান করোনা পরিস্থিতির উপর ভিত্তি করে একদিনের বেতনের সমপরিমাণ অর্থ ধার্য করা হয়েছে। এমনও হতে পারে আমরা আবার সংগ্রহ করবো। প্রতিদিনই দু-চারটা ডিপার্টমেন্ট তাদের সাহায্য পাঠাচ্ছে। সব মিলিয়ে খুব ভালো সাড়া পাচ্ছি। যখন আমাদের ফান্ড সংগ্রহ শেষ হবে তখন জানাবো আমরা এই অর্থ কোথায় দিবো।

শিক্ষক সমিতির এমন উদ্যোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক আনন্দ কুমার সাহা বলেন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা বিভিন্ন সময় দেশের ক্রান্তিকালে সবসময় অসহায়দের পাশে ছিলো। এরই ধারাবাহিকতায় প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে এক কোটি টাকা দিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। পরে শিক্ষক সমিতি সিদ্ধান্তের পরিপ্রেক্ষিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা এক দিনের বেতন প্রদানে ইচ্ছাপোষণ করেছেন। আমি ব্যক্তিগতভাবে এরূপ সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানাচ্ছি।#