খেলাধুলা

ভারতের বিশ্বকাপ জয়ী মাঠ রূপ নিচ্ছে কোয়ারেন্টিন সেন্টারে

শেয়ার করুন

বিডি রিপোর্ট টোয়েন্টিফোর ডটকম :

মহেন্দ্র সিং দুর্দান্ত ফিনিশিংয়ে ২০১১ বিশ্বকাপে ভারত দ্বিতীয়বারের মতো ক্রিকেটের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন হয়। মুম্বাইয়ের বিখ্যাত ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে এই অনন্য অর্জন করে ভারত। বর্তমানে এই স্টেডিয়ামটি করোনাভাইরাসে সংক্রমিত রোগীদের জন্য ছেড়ে দেওয়া হচ্ছে। ব্যবহার করা হবে করোনা আক্রান্তদের জন্য কোয়ারেন্টিন সেন্টার হিসেবে।

ভারতীয় দৈনিক দ্য হিন্দু জানিয়েছে, গতকাল শুক্রবার মাঠ ছেড়ে দেওয়ার জন্য মুম্বাই ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনকে (এমসিএ) মহারাষ্ট্র রাজ্য সরকারের পক্ষে চিঠি পাঠায় মুম্বাই সিটি করপোরেশন। তাতে পুরো স্টেডিয়াম প্রাঙ্গণের সমস্ত অবকাঠামো সরকারের হাতে তুলে দিতে বলা হয়েছে।

মিউনিসিপ্যাল করপোরেশনের দেওয়া নির্দেশনামায় লেখা ছিল, ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামকে কোয়রান্টিন সেন্টারে পরিণত করার নির্দেশ দিয়েছে রাজ্য সরকার। তাই অনুরোধ করা হচ্ছে, ওয়াংখেড়ের ক্যাম্পাসে যে সব হোটেল, লজ, ক্লাব, এক্সিবিশন সেন্টার, ক্লাব, ডর্মিটরি ইত্যাদি রয়েছে সেসব তুলে দেওয়া হোক রাজ্য সরকারের হাতে।

যদিও ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম ব্যবহারের অনুমতি দেওয়া হচ্ছে অর্থের বিনিময়ে। তবে মিউনিসিপ্যাল করপোরেশনের নির্দেশ অমান্য করলে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলেও জানিয়ে দিয়েছে মিউনিসিপ্যাল করপোরেশন।

নির্দেশনায় বলা আছে, ‘নির্দেশ অমান্য করলে, ১৮৮ ধারায় শাস্তি হতে পারে। ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামকে কোয়ারেন্টিন সেন্টারে পরিণত করার পারিশ্রমিক সময় মতো তুলে দেওয়া হবে মুম্বাই ক্রিকেট সংস্থাকে। তাই রাজ্যের এই সংকটকালীন মুহূর্তে পাশে থাকার অনুরোধ করা হচ্ছে।’

মিউনিসিপ্যাল করপোরেশনের চিঠি পেয়ে মুম্বাই ক্রিকেট সংস্থার সচিব সঞ্জয় নায়েক জানিয়েছেন, ‘আমরা আবেদনপত্র পেয়েছি। রাজ্য সরকারের সঙ্গে প্রত্যেক পদক্ষেপে সহযোগিতা করবে এমসিএ।’