আজকের সেরা সংবাদ

উহানে পাঁচ বছরের জন্য বন্যপ্রাণী খাওয়া নিষিদ্ধ

শেয়ার করুন

বিডি রিপোর্ট টোয়েন্টিফোর ডটকম :

চীনের হুবেই প্রদেশের উহান শহরের কর্তৃপক্ষ সেখানে বন্যপ্রাণী খাওয়া নিষিদ্ধ করেছে। চীনের এই শহরের একটি সিফুড মার্কেট থেকেই প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস ছড়িয়ে বলে ধারণা করা হয়। খবর ডেইলি মেইলের।

শহর কর্তৃপক্ষের নতুন এই নীতিমালা গত ১৩ মে থেকে কার্যকর হয়েছে। উহান সরকারের ওই নোটিশ অনুযায়ী, আগামী পাঁচ বছরের জন্য এই নীতিমালা বলবৎ থাকবে।এর আগে হুবেই প্রদেশের কর্তৃপক্ষ বন্যপ্রাণী খাওয়া পুরোপুরি নিষিদ্ধ করে গত মার্চে একটি আইন পাস করে।

তারও আগে ফেব্রুয়ারি মাসে বন্যপ্রাণী বিক্রি ও খাওয়া নিষিদ্ধ করে সাময়িক একটি আইন পাস করে চীনের কেন্দ্রীয় সরকার।চীনের বিশেষজ্ঞরা চলতি বছরের জানুয়ারিতে বলেছিলেন যে, এক কোটি ১০ লাখ বাসিন্দার এই শহরের একটি সিফুড মার্কেটের সম্ভবত একটি বন্যপ্রাণীর শরীর থেকে মানুষের শরীরে ছড়িয়ে পড়ে এই ভাইরাস।উহানের হুয়ানান সিফুড হোলসেল মার্কেট থেকে বৈশ্বিক এই মহামারিটি ছড়িয়ে পড়েছে বলে ধারণা করা হয়।

এমন পরিস্থিতিতে গত ১ জানুয়ারি এই মার্কেটটি বন্ধ করে দেয় চীনা কর্তৃপক্ষ।ওই মার্কেটে সামুদ্রিক প্রাণী ছাড়াও শেয়াল, কুমির, নেকড়ের বাচ্চা, বড় সালামান্ডার, সাপ, ইঁদুর, ময়ূর, সজারু, কোয়ালা ও অন্যান্য বিভিন্ন প্রাণীর মাংসও বিক্রি করা হতো।এই ভাইরাসটি ছড়িয়ে পড়ার পর চীনে ৮২ হাজার ৯৬৫ জন আক্রান্ত হয়। আর মৃত্যু হয় চার হাজার ৬৩৪ জনের।

আর বিশ্বজুড়ে এই ভাইরাসে এখন পর্যন্ত কমপক্ষে তিন লাখ ২৪ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আর আক্রান্ত হয়েছে প্রায় ৫০ লাখ মানুষ।