টাঙ্গাইলে দুই পাচারকারী গ্রেপ্তার ॥ পাঁচ শিশু উদ্ধার

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি : টাঙ্গাইল শহরের আকুুরটাকুর তালতলার একটি ভাড়া বাসা থেকে দুই শিশু পাচারকারীতে গ্রেপ্তার এবং পাঁচ শিশুকে উদ্ধার করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ(ডিবি)। মঙ্গলবার(১০ অক্টোবর) দুপুরে তাদেরকে সাংবাদিকদের সামনে উপস্থিত করা হয়।
জেলা গোয়েন্দা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, সোমবার(৯ অক্টোবর) গোপণ সূত্রে খবর পেয়ে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের একটি চৌকশ দল জেলা শহরের আকুরটাকুর তালতলায় অবস্থিত জনৈক শাহজাহানের আবাহনী বিল্ডিং নামে পরিচিত ভবনে অভিযান চালায়। এ সময় ভবনের নিচতলার পশ্চিম ফ্ল্যাটের ভাড়াটিয়া স্বপ্না ভদ্র ওরফে নুপুর(৫৭) ও রানা ভদ্রকে (২৫) গ্রেপ্তার এবং তাদের হেফাজতে রাখা বিভিন্ন বয়সী পাঁচ শিশুকে উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত শিশুরা হচ্ছে, মেয়ে শিশু শ্যামা(১২), সঙ্গীতা(১১), ছেলে শিশু কাজল(১০), কৃষান(৪) ও অনল(৪)। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে শিশুরা তাদের বাবা মির্জাপুর উপজেলার বানিয়ারা কড়াইল গ্রামের স্বর্গীয় জিতেন্দ্র নাথ ভৌমিকের ছেলে অসীম কুমার ভৌমিক ও মাতা পল্লবী ওরফে নুপুর(৩০) বলে জানায়। গ্রেপ্তারকৃত স্বপ্না ভদ্র ওরফে নুপুর নাগরপুর উপজেলার এলাসিন পাহাড়পুর গ্রামের স্বর্গীয় প্রদীপ ভদ্রের স্ত্রী এবং রানা ভদ্র তার ছোট ভাই। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা শিশুদের পরিচয়ের বিষয়ে কোন সদুত্তর দিতে পারেনি নি। স্বপ্না ভদ্র ওরফে নুপুর জানান, ছেলে-মেয়েরা তার ভাই অসীম কুমার ভৌমিকের। তার মেয়ে রনি ভদ্র(২৭) ও মনি ভদ্র(২৬) ছেলে-মেয়েগুলোর দেখভাল করে। অসীম ও তার অপর দুই ভাই ঢাকায় চাকুরি করে টাকা পাঠায়। জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ অশোক কুমার সিংহ জানান, উদ্ধারকৃত শিশুরা নিজেদের বাবা-মায়ের নাম এবং কোন ক্লাসে পড়ালেখা করে তা বলতে আমতা আমতা করছে। তাদেরকে জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের কর্মকর্তাদের হেফাজতে দেওয়ার প্রক্রিয়া চলছে। সমাজসেবা কার্যালয়ের কর্মকর্তাদের কাউন্সিলিংয়ে তাদের প্রকৃত পরিচয় জানা সম্ভব হবে। এ বিষয়ে গ্রেপ্তারকৃত স্বপ্না ভদ্র ওরফে নুপুর, রানা ভদ্র এবং পলাতক অসীম কুমার ভৌমিক, রনি ভদ্র, মনি ভদ্র ও পল্লবী ওরফে নুপুর ভৌমিককে অভিযুক্ত করে টাঙ্গাইল মডেল থানায় মানবপাচার নিরোধ আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। উদ্ধারকৃত শিশুদের জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের কর্মকর্তাদের হেফাজতে দেওয়া প্রক্রিয়া চলছে।
ওসি আরো জানান, এ অভিযানে জেলা গোয়েন্দা পলিশের এসআই আসাদুজ্জামান টিটুর নেতৃত্বে এসআই মো. বিল্লাল হোসেন, এসআই মো. শামসুল ইসলাম, এসআই মো. ওবাইদুর রহমান, এএসআই মো. ফারুক আহাম্মেদ, এএসআই সিদ্দিকুর রহমান সহ সঙ্গীয় ফোর্স অংশ নেয়।