দোকলামে অবকাঠামো নির্মাণ চীনের দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনা

ভারত ও চীনের মধ্যে উত্তেজনাপূর্ণ দোকলামেই সড়ক ও অন্যান্য অবকাঠামো নির্মাণ অব্যাহত রাখবে চীন। এমন কথা বলা হয়েছে চীনের কমিউনিস্ট পার্টির পত্রিকা দ্য গ্লোবাল টাইমস-এ। এতে একটি মতামত কলামে এ কথা বলা হয়েছে বলে খবর দিয়েছে অনলাইন টাইমস অব ইন্ডিয়া। এতে আরো বলা হয়, ওই মতামত কলামে গত সপ্তাহের গ্লোবাল টাইমসের একটি রিপোর্ট উদ্ধৃত করা হয়। তাতে বলা হয়েছে, চীন ও ভারতের মধ্যে সম্প্রতি দোকলামে যে স্থানে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছিল সেখান থেকে ১০ কিলোমিটার দূরে চুমবি উপত্যকায় সড়ক নির্মাণ শুরু করেছে চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মি। মতামত কলামে এ বিষয়ে ভারতের প্রতিক্রিয়াকে ভ্রান্ত হিসেবে এবং ভারতীয় সমাজকে ভিতু হিসেবে আখ্যায়িত করা হয়েছে। একই সঙ্গে বলা হয়েছে, এটি একটি স্পর্শকাতর ইস্যু। উল্লেখ্য, ভারত সরকার সম্প্রতি বলেছে, দোকলামে কোনো নতুন অবকাঠামো নির্মাণ করছে না চীন। গ্লোবাল টাইমস বলেছে, ভারত সরকারের ওই অস্বীকার করার কারণে বর্তমানে অবকাঠামো নির্মাণ করা হচ্ছে এমনটা নয়। এর কারণ হলো, ওই এলাকায় যেকোনো অবকাঠামো নির্মাণ করার পূর্ণাঙ্গ অধিকার আছে বেইজিংয়ের। এতে বলা হয়, দোকলাম হলো চীনা ভূখন্ড। চীনের কার্যকর নিয়ন্ত্রণ ও নজরদারিতে আছে। এতে আরো বলা হয়, দোকলাম উত্তেজনার সময় চীন তার প্রচেষ্টা জোরালো করেছে। তারা জানান দিয়েছে ওই অঞ্চলে অবকাঠামোর উন্নয়ন ও সদক নির্মাণ হলো চীনের দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা।