আজকের সেরা সংবাদ

২০তলা ভবনে বাস করবে বস্তিবাসী : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আমরা দেশকে উন্নয়নের দিকে নিয়ে যাচ্ছি। এই উন্নয়নের ছোঁয়া শুধু উচ্চবিত্ত নয়, নিম্নবিত্তরাও পাবেন। বস্তিবাসীরা এখন ঢাকা শহরে যে ভাড়া দিয়ে একটা কামরায় থাকে সে ভাড়া দিয়ে ২০তলা ফ্লাটে থাকবেন। তারা যাতে ভালভাবে বসবাস করতে পারে আমরা সে ব্যবস্থা করবো। তারা দিনে, সপ্তাহে মাসে যেভাবে পারবে সেভাবে ভাড়া পরিশোধ করবেন।

রোববার সকালে প্যান প্যাসেফিক সোনারগাঁও হোটেল ঢাকা ওয়াসার দাশেরকান্দি পয়ঃশোধনাগার প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ঢাকা শহরে বিত্তবানর যেমন থাকবেন, তেমনি বস্তিবাসিরাও থাকবেন। তাারা কোথায় যাবে? তারাও তো মানুষ। বিভিন্ন কারণে তারা বস্তিতে এসে বসবাস করেন। উচ্চবিত্তদের জন্য গরীব মানুষেরও দরকার আছে। তারা কাজ করে খাবে সেটা তো দোষের নয়।

তিনি বলেন, ২০০৯ সালে যখন ক্ষমতায় আসি তখন ঢাকা শহরে পানির জন্য হাহাকার ছিল। ১৫০ টাকার পানির গাড়ি দেড় হাজার টাকা দিয়ে নিতে হতো। আমরা ক্ষমতায় আসার পর বিভিন্ন পরিকল্পনা নেয়ায় রাজধানী পানি সমস্যা থেকে পরিত্রাণ পেয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, পানি সরবরাহের ক্ষেত্রে ঢাকা ওয়াসা এখন দক্ষিণ এশিয়ার রোল মডেল। ঢাকা ওয়াসায় অনেক অনিয়ম ছিল। আমরা সেগুলো দূর করেছি। ঢাকা শহরের সঙ্গে সঙ্গে অন্যান্য শহরের পানি সমস্যারও সমাধান করবো আমরা।

তিনি বলেন, সরকারের ধারাবাহিকতা আছে বলে আমরা এ কাজগুলো করতে পারছি। ঢাকা শহরে অনেক খাল ছিল। সেগুলো কালভার্ট সেতু বা রোড হয়েছে। আগামী ডিসেম্বরে নির্বাচন। জনগণের ভোটে আবার ক্ষমতায় আসতে পারলে সব কালভার্ট ভেঙে খাল এবং খালের উপরে দোতলা-তিনতলা রাস্তা নির্মাণ করবো।