জাতীয়

ব্লু-ইকোনোমিতে কোস্টগার্ডের ভূমিকা প্রশংসনীয় : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

ব্লু -ইকোনোমি প্রতিষ্ঠার প্রয়োজনীয়তা অনুধাবন করে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান প্রথম সমুদ্রসীমানা দাবি করেন। বর্তমানে ব্লু- ইকোনোমিতে বাংলাদেশ কোস্টগার্ডের ভূমিকা প্রশংসনীয়। সমুদ্রপথে মাদকসহ যে কোনো চোরাচালান রোধেও বাহিনীটি সুনামের সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।

বুধবার রাজধানীর হোটেল ওয়েস্টিনে এশিয়ার ১৮টি দেশের কোস্টগার্ডের সমন্বয়ে দু’দিনব্যাপী ওয়ার্কিং লেভেল মিটিংয়ের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব বলেন তিনি।

প্রথমবারের মতো বাংলাদেশ কোস্টগার্ডের আয়োজনে হেড অব এশিয়ান কোস্ট গার্ড এজেন্সির (এইচএসিজিএএম) ১৪তম এ সভায় ১৮টি দেশের ৪১ জন প্রতিনিধি অংশ নিয়েছেন। দুই দেশের প্রতিনিধিদলসন্ত্রাসবাদ, মাদক, চোরাচালান, মানবপাচার প্রতিরোধ, অবৈধ মৎস্য আহরণসহ কঠোর অভিযানের মাধ্যমে কোস্টগার্ড দুর্বৃত্তদের প্রতিহত করে আসছে বলেও জানান তিনি।

ব্লু -ইকোনোমির বিষয়টি মাথায় রেখে নিরাপদ মেরিটাইম পরিবেশের জন্য সব দেশকে একসঙ্গে কাজ করে যাওয়ার আহ্বান জানান মন্ত্রী।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে কোস্টগার্ডের মহাপরিচালক রিয়ার অ্যাডমিরাল আওরঙ্গজেব চৌধুরী বলেন, এই সভার মাধ্যমে বিভিন্ন দেশের সমুদ্র ও উপকূলবর্তী অঞ্চলে উদ্ধার তৎপরতা, পরিবেশ দূষণ প্রতিরোধ, অবৈধ কর্মকাণ্ড প্রতিরোধসহ পারস্পরিক সম্পর্ক উন্নয়নে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।