খেলাধুলা

টি-২০ কিভাবে খেলতে হয় দেখিয়ে দিলেন মুশফিক

রাইলি রুশো, নিকোলাস পুরান, জাজাই কিংবা এভিন লুইস, থিসারা পেরেরাদের ঝড় দেখা গেছে বিপিএলে। কিন্তু দর্শকদের চোখ ফুটো হচ্ছে স্থানীয় ক্রিকেটারদের ব্যাটে চার-ছক্কা দেখার জন্য। তামিম, লিটন, সাব্বির, সৌম্যরা তা দেখাতে এখন পর্যন্ত ব্যর্থ। দায়িত্ব তাই তুলে নিলেন মুশফিকুর রহিম। দুর্দান্ত এক ইনিংস খেলে কুমিল্লার বিপক্ষে দলকে এনে দিলেন ৪ উইকেটের জয়। এবারের বিপিএলে বাংলাদেশি কোন তারকার এখন পর্যন্ত এটাই সর্বোচ্চ রানের ইনিংস। মুশফিক অবশ্য একটু আফসোস করতে পারেন।

৪১ বলে ৭৫ রানের ইনিংস খেলেও জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারেননি। জয় থেকে মাত্র ৭ রান দূরে থাকতে আউট হন তিনি। তবে রবি ফ্রাইলিংক দারুণ এক ছক্কা মেরে ম্যাচ জিতিয়ে ফেরেন। মুশফিক তার চমক দেখানো ওই ইনিংস খেলার পথে চারটি ছক্কা এবং সাতটি চারের মার মারেন।

এর আগে প্রথমে ব্যাট করে থিসারা পেরেরা দুর্দান্ত এক ইনিংসে ১৮৪ রান তোলে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। নিউজিল্যান্ড থেকে বিপিএল খেলতে আসা এই লংকান তারকা ২৬ বলে করেন ৭৪ রান। ছক্কা মারেন আটটি। আর চারের মার মাত্র তিনটি। এছাড়া এভিন লুইস ৩৮, সাইফউদ্দিন ২৬ এবং ইমরুল কায়েস ২৪ রান করেন।

চিটাগংয়ের হয়ে মুশফিক ছাড়া ভালো করেন মোহাম্মদ শাহজাদ। আফগান এই ওপেনার ২৭ বলে ৪৬ রান করেন। চিটাগং প্রথমে কোন উইকেট না হারিয়ে ৫৮ রান তোলে। পরে ৭০ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে বসে তারা। সেখান থেকে মুশফিক দারুণ ওই ইনিংস খেলে ম্যাচ বের করে নেন।