আজকের সেরা সংবাদ

কাঠমান্ডু ঘোষণার মধ্য দিয়ে শেষ হলো বিমসটেক সম্মেলন

কাঠমান্ডু ঘোষণার মধ্য দিয়ে বঙ্গোপসাগরের উপকূলবর্তী সাতটি দেশের জোট বিমসটেকের (বে অব বেঙ্গল ইনিশিয়েটিভ ফর মাল্টি সেক্টরাল টেকনিক্যাল অ্যান্ড ইকোনমিক কো-অপারেশন) চতুর্থ শীর্ষ সম্মেলন শেষ হয়েছে।

শুক্রবার সকালে হোটেল সোয়াল্টি ক্রাউন প্লাজায় শুরু হয় সম্মেলনের আজকের অধিবেশন। দুপুরে অধিবেশনের সমাপনী ঘোষণা দেয়া হয়। এসময়, বিমসটেককে শক্তিশালী করতে নতুন কর্মপরিকল্পনা গ্রহণে একমত হন সদস্য দেশগুলোর সরকার প্রধানরা। আঞ্চলিক বিদ্যুৎ বাণিজ্য সম্প্রসারণে একটি সমঝোতা স্মারকও এদিন সই হয়। সমাপনী এই অধিবেশনে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পরে বিমসটেকের পরবর্তী সভাপতি শ্রীলংকার হাতে ক্ষমতা হস্তান্তর করা হয়।

কাঠমান্ডু ঘোষণায় বিমসটেকভুক্ত দেশের মানুষের উন্নয়নে পারস্পারিক সহযোগিতার ওপর জোর দিয়ে নেপালের প্রধানমন্ত্রী, বিদ্যুৎ পর্যটনের মতো খাতগুলোতে একসঙ্গে কাজ করার আহ্বান জানান।

শুক্রবার সকালে বিমসটেকের সমাপনী অনুষ্ঠানসহ রিট্রিট সেশনে অংশ নেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। দ্বিতীয় দিনের অধিবেশনে মন্ত্রী পর্যায়ের ১৫ ও ১৬তম বৈঠকের প্রতিবেদন পর্যালোচনা করা হয়। পরে, বিমসটেক সদস্য দেশগুলোর মধ্যে একটি বৃহৎ কাঠামোর আওতায় গ্রিড সংযোগের মাধ্যমে আঞ্চলিক পর্যায়ে বিদ্যুৎ লেনদেনে একমত হন জোটভুক্ত দেশের সরকার প্রধানরা। এ সংক্রান্ত একটি সমঝোতা স্মারক সই হয়।

বৃহস্পতিবার নেপালে শুরু হয় দুদিনের বিমসটেক শীর্ষ সম্মেলন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, নেপালের প্রধানমন্ত্রী এবং চতুর্থ বিমসটেক সম্মেলনের চেয়ারপার্সন কেপি শর্মা ওলি, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, ভুটানের অন্তবর্তী সরকারের প্রধান উপদেষ্টা দাশো সেরিং ওয়াংচুক এবং বিমসটেকের অন্যান্য নেতারা উদ্বোধনী অধিবেশনে ভাষণ দেন।